শুক্রবার ২৭শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ১৩ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
ই-পেপার   শুক্রবার ২৭শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

খানসামার ৩বারের ইউপি চেয়ারম্যান ও শতবর্ষী আ’লীগ নেতা ডাঃ গোবিন্দের মানবেতর জীবনযাপন
প্রকাশ: ১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২২, ৮:২১ পূর্বাহ্ণ |
অনলাইন সংস্করণ

খানসামার ৩বারের ইউপি চেয়ারম্যান ও শতবর্ষী আ’লীগ নেতা ডাঃ গোবিন্দের মানবেতর জীবনযাপন
মোঃ নুরনবী ইসলাম, খানসামা (দিনাজপুর) প্রতিনিধিঃ দিনাজপুরের খানসামা উপজেলার ভাবকি ইউনিয়ন পরিষদের ৩ বারের নির্বাচিত সাবেক সফল চেয়ারম্যান এবং বর্ষীয়ান ও প্রবীণ আওয়ামী লীগ নেতা প্রায় শতবর্ষী ডাঃ বাবু গোবিন্দ চন্দ্র রায় মানবেতর জীবনযাপন করছেন। বসবাস করছেন একটি জরাজীর্ণ ঘরে। তিনি আওয়ামীলীগের একজন কর্মী হওয়ায় শেষ ইচ্ছে হিসেবে বঙ্গবন্ধু কণ্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে দু’মিনিট মুঠোফোনে কিংবা ভিডিও কলে কথা বলতে চান।
খোঁজ নিয়ে জানা যায়, ডাঃ গোবিন্দ চন্দ্র রায় ১৯২৭ সালে খানসামা উপজেলার গুলিয়ারা গ্রামের বানিয়া পাড়ায় জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর বাবা মৃত নরেন্দ্র নাথ রায় (মুহুরী) ও মা মৃত গৌর মণি। ১৯৫৭ সালে বগুড়া প্যারামেডিকেল কলেজ থেকে পাশ করে বাড়িতে এসে কাচিনীয়া বাজারে উপ-স্বাস্থ্য কেন্দ্রে চাকুরি করেন। এরপর প্রত্যন্ত এলাকায় শিক্ষা ছড়িয়ে দিতে কাচিনীয়া স্কুল অ্যান্ড কলেজসহ বেশ কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠা করেন। এজন্য তিনি কাচিনীয়া স্কুল অ্যান্ড কলেজের প্রতিষ্ঠাকালীন থেকে বর্তমান পর্যন্ত সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন। ১৯৭২ সাল থেকে ২০১১ সাল পর্যন্ত খানসামা উপজেলার ভাবকি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সফলতার সাথে সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি চেয়ারম্যান থাকাকালীন তাঁর সততার ঘটনাগুলো আজও মানুষের মুখে মুখে রয়েছে। তিনবার চেয়ারম্যান হয়ে তিনি জনগণের কল্যাণে কাজ করেছেন। এখন তাঁর ৯৫ বছর বয়স। জীবনের শেষ প্রান্তে এসে খুব কষ্টে দিন কাটাচ্ছেন। জরাজীর্ণ একটি ঘরে তিনি বসবাস করছেন। তাঁর দুই ছেলে ও দুই মেয়ে। সন্তানদের আর্থিক অবস্থাও তেমন ভালো না। তারপরও সন্তানদের উপার্জনে বৃদ্ধ বয়সের নানা রোগে আক্রান্ত হওয়ায় প্রয়োজনীয় ওষুধ ও স্ত্রী নিয়ে জীবযাপন করছেন।
ডাঃ বাবু গোবিন্দ চন্দ্র রায় বলেন, ইউপি চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগের দায়িত্বে থাকাকালীন বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ধারণ করে জনগণের কল্যাণে কাজ করেছি। নিজের জন্য অট্টালিকা কিংবা সম্পদ গড়ার চিন্তাভাবনা কখনোই আমার মাঝে কাজ করেনি। বঙ্গবন্ধুর সাথে হাত মেলানোর সুযোগ হয়েছিল। দিনাজপুরের সাবেক সাংসদ ও বর্ষীয়ান আওয়ামী লীগ নেতা এম. আঃ রহিম ও আঃ রউফের সাথে একসাথে রাজনীতি করেছি। তবে কখনো কারো কাছে হাত পাতি নি। শুধু শেষ জীবনের একটাই ইচ্ছা আমাদের বঙ্গবন্ধু কণ্যা শেখ হাসিনার সাথে দু’মিনিট কথা বলতে চাই। কথা বলতে পারলে রাজনৈতিক জীবন সার্থক হবে।




এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

পুরোন সংবাদ খুজুন
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১  

সর্বাধিক পঠিত

প্রকাশক: সৈয়দ রিপন

সম্পাদক: রোমান চৌধুরী

মোবাইলঃ ০১৭১১৯৫৭২৬৩ / 09639298200

অফিস : জানুকি সিং রোড,কাউনিয়া,বরিশাল

ই-মেইলঃ barisalpress247@gmail.com

Design & Developed by
  ঘোড়াশাল-পলাশ ইউরিয়া সার প্রকল্পের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করলেন প্রধানমন্ত্রী   খানসামায় ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী পরিবারে বাড়ি প্রদান ও ছাত্রীদের মাঝে বাইসাইকেল বিতরণ    হাওরে আর সড়ক নয়, এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে নির্মাণের নির্দেশনা   খাদ্য উৎপাদন-মজুত-বিপণনে অনিয়মে হবে সর্বোচ্চ ৫ বছরের জেল   ঈদের আগে-পরে ৬ দিন ফেরিতে ট্রাক পারাপার বন্ধ   সোমবার থেকে লঞ্চের অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরু হবে   সরকার দেশের জনগণের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করছে : ওবায়দুল কাদের   কম খরচে ভারত গমনেচ্ছুক যাত্রীদের জন্য সুখবর   দ্বৈত ভোটার হতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সনদ লাগবে না   ঈদে বাসের অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরু   প্লাস্টিক কারখানায় আগুন, নিয়ন্ত্রণে ফায়ার সার্ভিসের ১২ ইউনিট   বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে   সবাইকে পহেলা বৈশাখের শুভেচ্ছা প্রধানমন্ত্রীর   আজ পহেলা বৈশাখ   মানুষের নিরাপত্তার দায়িত্ব আমাদের: র‍্যাব ডিজি   ধর্মের সঙ্গে সংস্কৃতির সংঘাত সৃষ্টি ঠিক নয় : প্রধানমন্ত্রী   সারাদেশে ট্রেন চলাচল বন্ধ, রেলের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ধর্মঘট   প্রতিবেশী দেশের সঙ্গে সুসম্পর্ক না রেখে দেশের উন্নয়ন সম্ভব নয় : তথ্যমন্ত্রী   ঈদুল ফিতরের প্রধান জামাত সকাল সাড়ে ৮টায়   প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা ৩ ধাপে
error: কপি করা থেকে বিরত থাকুন !!