বৃহস্পতিবার ২২শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ ৬ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
ই-পেপার   বৃহস্পতিবার ২২শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

শেরপুরে ৫০ বছরের দখলীয় সম্পত্তি ভূয়া কাগজ সৃষ্টি করে দখল নেয়ার চেষ্টা
প্রকাশ: ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৩:৩৩ অপরাহ্ণ |
অনলাইন সংস্করণ

শেরপুরে ৫০ বছরের দখলীয় সম্পত্তি ভূয়া কাগজ সৃষ্টি করে দখল নেয়ার চেষ্টা
বগুড়া প্রতিনিধি বগুড়ার শেরপুর পৌর শহরের সান্যালপাড়ায় অর্পিত সম্পতি ও ৫০ বছর ধরে ভোগদখলকৃত জায়গা, ভূয়া কাগজপত্র এবং ওয়ারিশ সেজে বেদখল দেয়ার চেষ্টা করে আসছে প্রতিপক্ষরা। পুনরায় বিজ্ঞ আদালতে সুষ্ঠ বিচার প্রাপ্তিসহ অবৈধভাবে সম্পত্তি অবমুক্তকরনের চেষ্টা বন্ধে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে দাবী জানিয়ে ভূক্তভোগী প্রকৃত স্বত্ব দখলীয়রা। ২৯ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার দুপুরে শেরপুর উপজেলা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। এতে বর্তমান সময়ের বৈধ দখলদার ও ভূক্তভোগী স্যানালপাড়ার মৃত এন্তাজ আলীর ছেলে জসিম উদ্দিন লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন। লিখিত বক্তব্যে জসিম উদ্দিন বলেন, শেরপুর উপজেলাধীন শেরপুর-মৌজার, এমআরআর ১০৪৭ নং খতিয়ানভূক্ত ৭৭১ নং দাগের .৩৮৭৫ ও .৩১৭৫ সহ মোট .৭০৫০ সম্পত্তি রেকর্ড মালিকমূলে জনৈক কাশিনাথ সরকার। কিন্তু কাশিনাথ সরকার ১৯৬৫ সালে পরিবার-পরিজন নিয়ে একেবারে ভারতবাসী হলে ওই সম্পত্তি সরকারি বিধানমতে অর্পিত সম্পত্তি হিসেবে ৫৭ভিপি/৬৮ নং গেজেটভূক্ত হয়। এরপর ১৯৬৮ সালে ৫৭ভিপি/৬৮ নং কেসমূলে ৭৭১ সালে ১৯৭৫সহঃ জমি সরকারি বিধি মোতাবেক আমি পত্তন নেই। ওই সম্পত্তির লীজ নবায়নের মাধ্যমে .৭০৫০ শতাংশ ভোগদখল করিয়া আসছি। এরমধ্যে রোডস এন্ড হাইওয়ে .০৬০০ অধিগ্রহন করে। পরবর্তীতে আমি সহ ১২জন অবশিষ্ট সম্পত্তি লিজ মারফত প্রায় ৫০ বছরের অধিককাল ধরে অদ্যবধি ভোগ দখল করে আসছি। সরকারিভাবে লীজকৃত ওই সম্পত্তি ইদানিং হঠাৎ করে শহরের সান্যালপাড়ার জনৈকা সুফলা রানী নিজেকে কাশীনাথ সরকারের কন্যা দাবী করে ওই সম্পত্তি অবমুক্তকরণের জন্য সরকারের কাছে আবেদন করে। এতে সুফলা রানী কাশীনাথ সরকারের কন্যা দাবী প্রমানে ব্যর্থ হওয়ায় ০৪/০৬/১৯৭৬ সালে আবেদন খারিজ হয়। এরপর সুফলা রানী বগুড়ার বিজ্ঞ সাবজজ আদালতে ৮৭/৮৫ অন্য প্রকার মামলা দায়ের করলে বিগত ২৯/০৯/১৯৯৩ সালে, জেলা জজ আদালতে ৫৩/৯৪ মামলা দায়ের, অর্পিত সম্পত্তি প্রত্যার্পন ট্রাইব্যুানালে ৮৫২/২০১৩নং মামলা করলেও ১৫/০২/২০১৫ সালে তার আবেদন খারিজ ও নামঞ্জুর হয়। পরবর্তীতে সুফলা রানী আবারো অর্পিত আপীল ট্রাইব্যুনালে ০২/২০১৫ নং মামলা দায়ের করে। এ মামলার প্রেক্ষিতে সরকারের পক্ষের কাগজপত্র সঠিকভাবে পর্যালোচনা না করেই অন্যায়ভাবে প্রভাবিত হয়ে সরকারের বিপক্ষে রায় দেয় আদালত। রায়ের কিছুদিন পরেই বাদী সুফলা রাণী মারা যায়। এদিকে সুফলা রানী সরকারের ওয়ারিশগণ ওই অর্পিত আপীল ট্রাইব্যুনালে ০২/২০১৫ নং মামলায় একতরফা রায় নিয়ে আমাদের স্বত্বদখলীয় ও স্থায়ী স্থাপনা কিছু কুচক্রীমহলের সহায়ত অপসারণের অপচেষ্টা চালিয়ে আসছে। এসময় ভূক্তভোগী পরিবার সরকারের সম্পত্তি রক্ষা এবং অবৈধভাবে কাশীনাথ সরকারের কন্যা সেজে মিথ্যা, ভিত্তিহীন, বানোয়াট কাগজ সৃষ্টি করে সরকারি সম্পত্তি প্রতারনামূলক আত্মসাতের অপচেষ্টায় দৃষ্টামূলক শাস্তি ও পুনরায় মামলাটির সঠিকভাবে বিচারের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেন।




এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

প্রকাশক: সৈয়দ এমরান আলী রিপন

সম্পাদক: রোমান চৌধুরী

মোবাইলঃ ০১৭১১৯৫৭২৬৩ / 09639298200

অফিস : সৈয়দ মহল, জানুকি সিং রোড,কাউনিয়া,বরিশাল

ই-মেইলঃ barisalpress247@gmail.com

Design & Developed by
  প্রকৃতিক ভারসাম্য বজায় রেখে নির্মাণ করতে হবে সড়ক ।   প্রাথমিক-মাধ্যমিকে বার্ষিক পরীক্ষা হচ্ছে না |   বরিশালে সম্মিলিত সাংবাদিক পরিষদ ( এস এস পি)’র সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটি গঠন।   জামালপুরের মেলান্দহে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে কলেজ ছাত্রীর আত্মহত্যা   উজিরপুরে স্বাস্থ্যবিধি ও নিয়ম মেনে পূজা উদযাপনের আহ্বান, চেয়ারম্যান সরোয়ার   জয়পুরহাটে প্রতিটি পূজা মণ্ডপে মাস্ক ও সচেতনতামূলক ব্যানার বিতরণ   বরগুনায় জেলা প্রশাসনের পুকুরে মরে গেছে ২৫ লাখ টাকার মাছ ঠিকাদারের দূষিত পানিতে নিঃস্ব ইজারাদার   বরিশালের পলাশপুর কলোনীতে মহানগর গোয়েন্দা বিএমপি’র ব্লক রেইড।   বড়াইগ্রামে শিশু ও নারী উন্নয়নে সচেতনতামূলক যোগাযোগ কার্যক্রম শীর্ষক কর্মশালা   নওগাঁর আত্রাইয়ে পুজার সকল প্রস্তুুতি সম্পন্ন,কাল মহাষষ্ঠীর মাধ্যমে শারদীয় দুর্গোৎসব শুরু   স্বতন্ত্র প্রার্থীর সাথে নৌকার পরাজয়, উৎসবমুখর পরিবেশে সম্পন্ন হলো মহিপুর ইউপি নির্বাচন।।   ক্যাশ আউট খরচ নিয়ে বিভ্রান্তিকর প্রচারণা নগদ’র, উপেক্ষিত বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশনা।   বরিশাল টাইলস এন্ড স্যানিটারী বিজনেস এসোসিয়েশন’র মতবিনিময় সভা।   নবাবগঞ্জে স্বেচ্ছায় রক্তদানে উদ্বুদ্ধকরণ ফ্রী ক্যাম্পেইন   শেরপুরে ছাত্রীকে অপহরণ করে ধর্ষণ – শিক্ষকের বিরুদ্ধে গৃহবধুকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ   রাজশাহীতে পুলিশ পরিচয়ে তিন বছর ধরে অর্থ আদায়, প্রতারক আটক   কলাপাড়ায় গলায় ফাঁস দিয়ে দশম শ্রেণির ছাত্রীর আত্মহত্যা।।   ১১ দফা দাবীতে দুই বছরে ৪ দফায় কর্মবিরতি : প্রভাব পড়েছে মোংলা বন্দরে   বিভিন্ন পূজা মন্ডপে কেসিসির অনুদান প্রদান   নাটোরের সিংড়ায় চালককে হত্যা করে অটো ভ্যান ছিনতাই