বৃহস্পতিবার ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ ৯ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
ই-পেপার   বৃহস্পতিবার ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ


মীরগঞ্জ খেয়াঘাটে ইজারাদারের স্বেচ্ছাচারিতায় দূর্ভোগে হাজারো মানুষ
প্রকাশ: ৫ আগস্ট, ২০২০, ৮:৪৯ অপরাহ্ণ |
অনলাইন সংস্করণ

মীরগঞ্জ খেয়াঘাটে ইজারাদারের স্বেচ্ছাচারিতায় দূর্ভোগে হাজারো মানুষ
নিজস্ব প্রতিবেদকঃ বরিশাল জেলাধীন মুলাদি,হিজলা ও মেহেন্দিগঞ্জের কয়েক লাখ মানুষ এখন জিম্মি একজন ইজারাদারের কাছে। হিজলা মুলাদি ও মেহেন্দিগন্জের মানুষ তাদের জেলা সদর বরিশালে যাতায়াতের অন‍্যতম মাধ্যম বাবুগঞ্জ উপজেলার মীরগঞ্জ খেয়া ঘাট। মুলাদী উপজেলা হয়ে বরিশালে ঢুকতে হলে মিরগঞ্জ খেয়া পার হয়েই যেতে হয় এই তিন উপজেলার সর্বসাধারনের। নদীমাতৃক এলাকা বরিশালের হিজলা,মুলাদী ও মেহেন্দিগন্জের জনগনকে একপ্রকার জিম্মি করেই মীরগঞ্জ খেয়া পারাপারের ইজারাদার আদায় করছেন বাড়তি ভাড়া(টাকা)। সরকার নির্ধারিত ভাড়ার চার্ট থাকলেও কোন ট্রলারে নেই চার্ট। জনপ্রতি ট্রলার ভাড়া নিচ্ছে দশ টাকা অথচ নির্ধারিত ভাড়া ছয় টাকা মাত্র। ট্রলারে উঠতে হলে ঘাট খাজনা দিতে হয় দশ টাকা জনপ্রতি। সর্বমোট গুনতে হবে বিশ টাকা জনপ্রতি। কেউ যদি মোটরবাইক নিয়ে ট্রলার পার হয় তাকে গুনতে হয় আশি টাকা। মিরগঞ্জ খেয়াঘাটে প্রায় ৩৫ টি ট্রলার থাকলেও চলাকাল করছে মাত্র ৫ টি। আর এই ৫টি ট্রলার ইজারাদার নির্ধারিত। ইজারাদার নির্ধারিত ট্রলারের বাইরে অন‍্য কোন ট্রলার এখানে চালাতে দেয়না ইজারাদারের লোকজন। যদি কোন ট্রলার মাঝি এখানে যাত্রী পরিবহনের জন‍্য আসে তাহলে তাকে নানাপ্রকার হুমকি ধমকি দিয়ে ফিরে যেতে বাধ্য করে ইজারাদারের বাহিনী। মিরগঞ্জ খেয়া ঘাটের মাঝিমাল্লা সমিতির সভাপতি জাকির সিকদার বলেন গেল কোরবানির ঈদে কোন কোন মাঝি তাদের বাড়িতে এক প‍্যাকেট সেমাইও কিনে নিতে পারেননি। সাংবাদিক দের প্রশ্নের জবাবে আবেগআপ্লুত হয়ে এসব কথা বলেন মাঝি সমিতির সভাপতি। ইজারাদার নির্ধারিত বশির,তছির,নাছির,ইদ্রিছ,বেলাল ও কবির মাঝি ছাড়া অন্য কোন ট্রলার মাঝি যাত্রী পরিবহনের সুযোগ পাননা। অত্র খেয়াঘাটের মাঝিমাল্লা সমিতির সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন বলেন গত প্রায় তিন বছর যাবত চলছে এসব অনিয়ম। ট্রলারের অতিরিক্ত ভাড়া আদায় নিয়ে এলাকাবাসী ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব‍্যাক্ত করেন। কেউ কেউ বলেন ভাড়া তো তারা অতিরিক্ত দিচ্ছেনই মাঝে মাঝে তাদের সহ‍্য করতে হয় মাঝিদের অসৌজন্য মূলক আচরন। এমতাবস্থায় থেকে মুক্তি পেতে এলাকাবাসী অনতিবিলম্বে প্রশাসনের জরুরি হস্তক্ষেপ কামনা করেন। মাঝিমাল্লা সমিতির সভাপতি ও সম্পাদক সাংবাদিক দের কাছে ক্রন্দনরত কন্ঠে তাদের ট্রলার চলাচলে বাধাদান কারীদের বিরুদ্ধে আইনাইনুগ ব‍্যাবস্হা গ্রহনে প্রশাসনের নিকট দাবি জানান। এ বিষয়ে বাবুগঞ্জ উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা জনাব মো: আমিনুল ইসলাম এর কাছে জানতে চাইলে মুঠোফোনে তিনি তার অত্র উপজেলার দপ্তরে সদ‍্য যোগদান করেছেন বলে জানান, তবে তিনি অচিরেই এই বিষয়ে পদক্ষেপ গ্রহণ করবেন বলে আশ্বস্ত করেন।




এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

প্রকাশক: সৈয়দ এমরান আলী রিপন

সম্পাদক: রোমান চৌধুরী

মোবাইলঃ ০১৭১১৯৫৭২৬৩ / 09639298200

ই-মেইলঃ barisalpress247@gmail.com
অফিস : সৈয়দ মহল, জানুকি সিং রোড,কাউনিয়া,বরিশাল

Design & Developed by
  অনলাইনে কেনাকাটায় সতর্ক থাকুন   দেশে এক মাসেই ইন্টারনেট ব্যবহারকারী বাড়ল ৩০ লাখ   ৯০ মিনিটে করোনা সনাক্ত করবে এই যন্ত্র   ইউনিসেফকে সৌদির ৪৬ মিলিয়ন ডলার সহায়তা   ব্যবসা যেভাবে ইবাদতে পরিণত হয়   শ্রীলঙ্কা সফরের প্রস্তুতি এগিয়ে নিচ্ছে বিসিবি   করোনা আক্রান্ত ক্রিকেটার আবু জায়েদ রাহী   সুশান্ত মাদক মামলায় এবার আসছে দিয়া মির্জার নাম   সীতাকুণ্ডে ট্রেনে কাটা পড়ে নৌবাহিনীর কর্মকর্তার মৃত্যু   ডাক বিভাগের মহাপরিচালককে অপসারণের সুপারিশ   ব্রুনাইয়ে মানবপাচার: ৩৩ কোটি টাকা হাতিয়ে নেওয়া হিমু গ্রেপ্তার   হাটহাজারী থেকে সরিয়ে নেয়া হল আল্লামা শফীর স্মৃতিচিহ্ন   প্রাথমিক স্কুল খোলার বিষয়ে প্রস্তুতির নির্দেশ   চ্যালেঞ্জিং কাজের অধিকারী ডিবি হোক মানুষের আস্থার প্রতীক, বিএমপি কমিশনার   নওগাঁয় ছোট যমনা নদী থেকে এক নারীর ভাসমান লাশ উদ্ধার   ভোলায় কলেজ ছাত্রের উপর হামলাকারীদের গ্রেফতার ও বিচারের দাবিতে মানববন্ধন   নবাবগঞ্জে বিদ্যুৎ স্পষ্ট হয়ে গৃহকর্তা নিহত   বাংলাদেশিদের আকামার মেয়াদ ২৪ দিন বাড়ালো সৌদি | পররাষ্ট্রমন্ত্রী   নাটোরের সিংড়ায় আকস্মিক ঘূর্ণিঝড়ে ৩০টি ঘর বিধ্বস্ত   রাঙ্গাবালীতে ভার্কের গোলটেবিল বৈঠক